izmir kizlar
porno izle sex hikaye
çorum sürücü kursu malatya reklam inönü üniversitesi taban puanları

চট্টগ্রামের ৫টি আঞ্চলিক দৈনিক পত্রিকা প্রকাশনা একযোগে বন্ধ !

739B708C-35E9-413C-85D3-242E895CFC94-768x401.jpeg

সিএনটি ডেস্ক।।

চট্টগ্রাম থেকে প্রকাশিত আজাদী, পূর্বকোণ, বীর চট্টগ্রাম মঞ্চ, সুপ্রভাত বাংলাদেশ ও পুর্বদেশপত্রিকার প্রকাশনা একযোগে ‘অনির্দিষ্টকালের জন্য’ বন্ধ করে দিয়েছেন মালিকপক্ষ। ঈদুল আজহার আগে আকস্মিকভাবে পত্রিকাগুলোর প্রকাশনা বন্ধ করে দেওয়ায় কর্মরত সংবদকর্মীরা উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।বৃহস্পতিবার থেকে এসব দৈনিক প্রকাশিত হচ্ছে না।

ঘটনার সুত্রপাত ঈদ বোনাসের দাবিতে বুধবার (২৯ জুলাই) সকালে চট্টগ্রামের প্রাচীনতম পত্রিকা দৈনিক আজাদীর সম্পাদক এম এ মালেকের বাসভবন ঘেরাও কর্মসূচি পালন করে সিইউজে। এরপর রাতে আজাদীসহ অন্যান্য পত্রিকায় কর্মরতরা জানতে পারেন, কর্তৃপক্ষ পত্রিকার প্রকাশনা বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

জানতে চাইলে দৈনিক আজাদীর সম্পাদক এম এ মালেক সারাবাংলাকে বলেন, ‘পত্রিকা বন্ধ আছে। কারও বিরুদ্ধে আমার কোনো অভিযোগ নেই। আমি কারও সঙ্গে ঝগড়া-বিবাদ চাই না। আমার পত্রিকায় কর্মরতরাই এ বিষয়ে বলবেন।’

দৈনিক পূর্বকোণের প্রধান প্রতিবেদক নওশের আলী খান বলেন, ‘আমি গত (বুধবার) রাত ১২টায় কাজ শেষ করে অফিস থেকে বের হই। এরপর শুনতে পাই, কর্তৃপক্ষ পত্রিকার প্রকাশনা সাময়িক বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। আমাদের সম্পাদক অসুস্থ। এ বিষয়ে উনার সঙ্গে আমি তখন কথা বলতে পারিনি।’

দৈনিক বীর চট্টগ্রাম মঞ্চের সম্পাদক উমর ফারুক কে বলেন, (বৃহস্পতিবার) আমাদের পত্রিকা প্রকাশ হয়নি। চট্টগ্রাম নিউজ পেপার অ্যালায়েন্সের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী পত্রিকা প্রকাশ হয়নি।’ প্রকাশ না করার কারণ জানতে চাইলে তিনি আজাদী সম্পাদক এম এ মালেকের সঙ্গে কথা বলার পরামর্শ দেন।

দৈনিক পূর্বদেশের সম্পাদক মুজিবুর রহমান বলেন, ‘দৈনিক আজাদীর সম্পাদক সাহেবের বাসার সামনে কর্মসূচির পর সম্পাদকরা সম্মিলিতভাবে পত্রিকার প্রকাশনা বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। এটা আমার একার নয়, সম্পাদকদের সম্মিলিত সিদ্ধান্ত। সিইউজের নেতাদের সঙ্গে আমার খুবই ভালো সম্পর্ক। আমি আশাবাদী, আলাপ-আলোচনার মধ্য দিয়ে এই সংকটের সমাধান হবে।’

দৈনিক সুপ্রভাত বাংলাদেশ পত্রিকার সম্পাদক রুশো মাহমুদকে একাধিকবার ফোন করেও কথা বলা সম্ভব হয়নি।

এদিকে, ঈদের নির্ধারিত ছুটির আগে আকস্মিকভাবে চট্টগ্রামের পাঁচটি পত্রিকার প্রকাশনা বন্ধ রাখা নিয়ে উদ্ভূত পরিস্থিতিতে জরুরি সভায় বসে সিইউজের নির্বাহী কমিটি। সিইউজে নেতারা পত্রিকা কর্তৃপক্ষের এ সিদ্ধান্তকে হটকারী বলে উল্লেখ করেছেন এবং উদ্বেগ জানিয়েছেন।

সংগঠনের সভাপতি মোহাম্মদ আলীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় উপস্থিত ছিলেন সাধারণ সম্পাদক ম. শামসুল ইসলাম, সিনিয়র সহ-সভাপতি রতন কান্তি দেবাশীষ, সহ-সভাপতি অনিন্দ্য টিটো, সাংগঠনিক সম্পাদক এস এম ইফতেখারুল ইসলাম, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ইফতেখার ফয়সল, নির্বাহী সদস্য মুহাম্মদ মহরম হোসাইন, পূর্বকোণ ইউনিট প্রধান মিহরাজ রায়হান, প্রতিনিধি ইউনিট প্রধান সাইদুল ইসলাম, টিভি ইউনিট প্রধান মাসুদুল হক, পূর্বদেশ ইউনিট প্রধান জীবক বড়ুয়া, পূর্বদেশে প্রতিনিধি ইউনিটের ডেপুটি ইউনিট প্রধান সরওয়ারুল আলম সোহেল ।

Top