izmir kizlar
porno izle sex hikaye
çorum sürücü kursu malatya reklam inönü üniversitesi taban puanları

খুরুস্কুল আশ্রয়ন প্রকল্পের সাম্পান ভবনে ফ্ল্যাট দখলের অভিযোগ

IMG_20201001_212226.jpg

বিশেষ প্রতিবেদক।।

কক্সবাজার খুরুস্কুল আশ্রয়ন প্রকল্পে ইয়াসমিন কাউসার নামীয় এক মহিলার ফ্ল্যাট দখলের অভিযোগ উঠেছে রাসেল নামের এক যুবকের বিরুদ্ধে। অভিযুক্ত যুবক পৌরসভার ১নম্বর ওয়ার্ডের কুতুবদিয়া পাড়ার আবু তৈয়বের ছেলে বলে জানা গেছে।

অভিযোগকারী ইয়াসমিন কাউসারের স্বামী মো.বেলাল উদ্দিন জানান,কক্সবাজার খুরুস্কুল আশ্রয়ন প্রকল্পে তালিকাভুক্ত ৪৪০৯ পরিবারের তালিকার মধ্যে প্রথম ধাপে ৬০০ পরিবার পূর্ণবাসন করা হয়। তার মধ্যে সাম্পান ভবনে ৩০৫ নং ফ্ল্যাটটির মূল তালিকায় ৫৫৬ নং ক্রমিকে আমার স্ত্রীর নামে রয়েছে। জনৈক মো.রাসেল আমার ছেলে দাবী করে কৌশলে ফ্ল্যাটটি বুঝিয়ে নিয়ে দখলে নেয়। বিষয়টি গতমাসের ১৫ সেপ্টেম্বর নাগাদ আমি জানতে পেরে ফ্ল্যাটটি উদ্ধারের জন্য সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর ২৮ সেপ্টেম্বর লিখিত অভিযোগ দাখিল করি। তিনি অভিযোগটি আমলে নিয়ে সদর এসিল্যান্ডকে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে নির্দেশ দেন। এরই ধারাবাহিকতায় বৃহস্পতিবার (১ অক্টোবর) সদর ভূমি অফিসের প্রতিনিধি জাহেদুল ইসলাম খুরুশকুল আশ্রয়ন প্রকল্পের ওই ফ্ল্যাটে গিয়ে অবৈধ দখলকারী মো.রাসেল কে ফ্ল্যাট ছেড়ে দিতে নির্দেশ দেন। নতুবা অবৈধ সেই দখলদারের বিরুদ্ধে আইননুসারে ব্যবস্থাগ্রহণ করা হবে বলে সাফ জানিয়ে দেন।

ফ্ল্যাট দখলকারী অভিযুক্ত মোঃ রাসেলের সাথে মোবাইলে যোগাযোগ করা হলে তিনি মোবাইলে কথা বলতে রাজি হননি। তবে সরাসরি বসে কিভাবে ফ্ল্যাটের মালিক হলেন সেটা বুঝানোর জন্য একদিন পর কথা বলবে জানিয়ে মোবাইলের সংযোগ কেটে দেন।

কক্সবাজার পৌরসভার ১নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর এসআইএম আকতার কামাল আজাদ জানান, ফ্ল্যাটটি মো.বেলাল উদ্দিনের স্ত্রীর নামে তালিকাতে অন্তর্ভুক্ত রয়েছে। কিন্তু রাসেল কিভাবে সেই ফ্ল্যাট দখলে নিয়েছে, তা আমি জানিনা। তবে বিষয়টি সদর উপজেলা নির্বাহি অফিসার সদর এসিল্যান্ডকে তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা নিতে নির্দেশ দিয়েছেন বলে ভুক্তভোগীরা আমাকে জানিয়েছেন।

এ ব্যাপারে জানতে কক্সবাজার সদর এসিল্যান্ডের মোবাইলে যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হলে মোবাইল সংযোগ না পাওয়ায় তার বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

Top