izmir kizlar
porno izle sex hikaye
çorum sürücü kursu malatya reklam inönü üniversitesi taban puanları

যানজট নিরসন চাই

shahadat-hossain.jpg

 

বাংলাদেশের একটি ছোট ও গুরুত্বপূর্ণ শহর কক্সবাজার। নান্দ্যনিক স্বাস্থ্যকর স্থানও বটে। পৃথিবীর দীর্ঘতম সমুদ্র সৈকতের শহর হিসেবেও ব্যাপক পরিচিত। এই শহরে বসবাস করে আমিও অত্যন্ত গর্বিত। এখানে দেশ-বিদেশের লক্ষ-লক্ষ পর্যটক ঘুরতে আসে। তাদের প্রোটোকল দিতে হিমশিম খায় ট্রাফিক পুলিশও। শহরের প্রধান সড়কটি(বার্মিজ মার্কেট থেকে লালদীঘির পাড়,সিভিল সার্জন অফিস থেকে সুগন্ধা পয়েন্ট)যানজট লেগেই থাকে। এই যানজটে অতিষ্ট পর্যটকসহ শহরবাসী। আমি একজন অতি নগন্য শহরবাসী হিসেবে এই যানজট নামক দু:খ থেকে পরিত্রাণ পেতে চাই।  সেজন্য জেলাপ্রশাসক ও পৌর মেয়রের বলিষ্ঠ হস্তক্ষেপ কামনা করছি।

নিম্নের পদক্ষেপগুলো গ্রহণ করলে হয়ত এই যানজট থেকে পরিত্রাণ পাইতে পারি-

১.শহরের প্রধান সড়কের বার্মিজ মার্কেট থেকে লালদীঘির পাড় পর্যন্ত রাস্তার দু’ধারের দোকানগুলো উচ্ছেদ করতে হবে।

২.রাস্তার উপর থেকে অস্থায়ী বাজারগুলো (বার্মিজ মার্কেটস্থ কাঁচা বাজার ও হাসপাতাল সড়কস্থ কাঁচা বাজার)উচ্ছেদ করতে হবে।

৩.টমটমগাড়ির যত্রতত্র পার্কিং বন্ধ করতে হবে।

৪.ফজল মার্কেট ও হোটেল সৈকতের সামনে থেকে অবৈধ টমটমের ষ্টেশন উচ্ছেদ করতে হবে।

৫.অবৈধ টমটমগাড়িগুলো মূল শহরে প্রবেশ নিষিদ্ধ করতে হবে।

৬.দিনের বেলায় (সকাল ৮ টা –রাত ৯ টা পর্যন্ত)পণ্যবাহী ও যাত্রীবাহী বড় গাড়ী শহরে প্রবেশে নিষিদ্ধ করতে হবে।

৭.সমবায় সুপার মার্কেট ও লালদীঘির পূর্ব পাড়ের রাস্তা থেকে সিএনজি গাড়ির পার্কিং ষ্টেশন উচ্ছেদ করতে হবে।

৮.লাইসেন্সধারী টমটমগাড়ির চালক যারা পোশাকধারী ও কার্ডধারী শুধু তারাই মূল শহরে গাড়ি চালাতে পারবে।

৯. যত্রতত্র পার্কিং-এ জরিমানা,কার্ড ও লাইসেন্স বাতিলসহ কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে।

১০. আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য পৌরসভা ও জেলাপ্রশাসক কার্যালয় থেকে পৃথক ২ জন ভ্রাম্যমান কর্মকর্তা নিয়োগ করতে হবে।

১১.যানজটযুক্ত স্থানে (বার্মিজ মার্কেট,বাজারঘাটা,পেট্রোলপাম্প,সৈকত হোটেল মোড়ে)ট্রাফিক ব্যবস্থা ঢেলে সাজাতে হবে। প্রয়োজনে শিফটিং ডিউটির (সকাল ৯ টা-দুপুর ২ টা,বিকাল বিকাল ৪ টা-রাত ৯ টা)ব্যবস্থা করতে হবে। সেই সাথে ২/৩ জন ট্রাফিক পুলিশকে ভ্রাম্যমান দায়িত্ব পালনের ব্যবস্থা করতে হবে।

১২. টমটমের যাতায়াত ব্যবস্থার লেইন ঠিক করে দিতে হবে।

@কলাতলী মোড় হতে আসা গাড়িগুলো শহীদ স্মরণীর মোড় হতে মূল সড়কে ঢুকতে না দেয়া

@সমিতিপাড়া হতে আসা গাড়িগুলো হলিড়ের মোড় হতে মূল সড়কে ঢুকতে না দেয়া

@নুনিয়াছড়া হতে আসা গাড়িগুলো হোটেল সৈকতের মোড় হতে মূল সড়কে ঢুকতে না দেয়া

@খুরুশকুল হতে আসা আসা গাড়িগুলো চৌধুরী ভবনের সামনে হতে মূল সড়কে ঢুকতে না দেয়া

@শুধুমাত্র শহরে মুল সড়কে যাতায়াতকারী গাড়িগুলো টার্মিনাল থেকে হলিড়ের মোড়,আবার হলিড়ের মোড় হয়ে কলাতলীর মোড় এবং কলাতলীর মোড় হয়ে টার্মিনাল গেলে যানজট নিরসন হতে পারে।

সবোর্পুরি,জেলা প্রশাসক ও পৌর মেয়রের বলিষ্ট হস্তক্ষেপ হোক যানজট নিরসন এবং জনদুভোর্গ থেকে পরিত্রাণ ও মুক্তির পথ।

সবার সু-স্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা করছি।

মো.শাহাদত হোছাইন

সম্পাদক ও প্রকাশক

কক্সনিউজটুডে.কম

মেইল-shahadatcox80@gmail.com

মোবাইল-০১৮৪৫-১১১৯৪৬

 

 

 

Top